শেষবারের মতো রাস্তায় নামতে চান দুদু

0 64

ডেস্ক:খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে এবং ‘গণতন্ত্র ফেরাতে’ শেষবারের মতো রাজপথে নামার আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপির শীর্ষ নেতা শামসুজ্জামান দুদু।

মঙ্গলবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাগর-রুনি মিলনায়তনে এক অনুষ্ঠানে দলটির এই ভাইস চেয়ারম্যান বলেন, ‘আসুন শেষবারের মতো একবার রাস্তায় থাকি। এই ত্যাগ স্বীকার করে নিতে পারলে আমাদের এবং বেগম জিয়ার মুক্তি কেউ ঠেকাতে পারবে না।’

‘একদিন একঘণ্টা যতটুকু সময়ই হোক না কেন, আমাদেরকে রাস্তায় নামতে হবে। আগে রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দকে রাস্তায় নামতে হবে। ছাত্র যুবক কৃষক শ্রমিক মেহনতী মানুষকে নামাতে হবে’, বলেন বিএনপির এই নেতা।

অতীতে বিভিন্ন সময়ে রাজপথে আন্দোলনের মাধ্যমে দাবি আদায়ের কথা তুলে ধরে সেই সময়ে এই ছাত্রনেতা বলেন, ‘রাস্তায় নামে নাই, অথচ আন্দোলন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে; এমন ইতিহাস আমার জানা নাই। এদেশে যা কিছু হয়েছে, এবং ভালো কিছু হয়েছে সবই ছাত্র আন্দোলনের মধ্য দিয়ে হয়েছে। এখনো যদি ভালো কিছু করতে হয় ছাত্রদের অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে।’

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও শহীদ জিহাদের ২৮তম শাহাদৎবার্ষিকী উপলক্ষে এই স্মরণসভার আয়োজন করে ‘শহীদ জিহাদ স্মৃতি পরিষদ’।

খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থার প্রসঙ্গ তুলে শামসুজ্জামান দুদু বলেন, ‘নিজের কথাগুলো যদি বলি দলের বিরুদ্ধে চলে যেতে পারে। সরকারি লোকজন যখন স্বীকার করছে খালেদা জিয়ার অবস্থা ভালো না। তার পায়ের অবস্থা, হাতের অবস্থা, কাধের অবস্থা ভয়ানক খারাপের দিকে চলে গেছে। এ অবস্থায় আমাদের যে ধরনের প্রতিবাদ করার দরকার ছিল, যে ধরনের আন্দোলন হওয়ার কথা ছিল আমরা কি তা করতে পেরেছি?’

এ সময় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের কঠোর সমালোচনা করে এর প্রতিবাদ করেন বিএনপির এই নেতা।

বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও ডাকসুর প্রাক্তন ভিপি আমান উল্লাহ আমানের সভাপতিত্বে এবং নির্বাহী কমিটির সদস্য নাজিম উদ্দিন আলমের সঞ্চালনায় স্মরণ সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান হাবিব, যুগ্ম-মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দীন চৌধুরী, সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক কামরুজ্জামান রতন, ডেমোক্রেটিক লীগের সাধারণ সম্পাদক সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি, জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টির জাগপার সাধারণ সম্পাদক খন্দকার লুৎফর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আসাদুর রহমান খান আসাদ প্রমুখ বক্তব্য দেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.