‘ইনশাল্লাহ, দিল্লিতে এখন শান্তি!’ রাজধানীর ‘দায়িত্ব’ নিয়ে দাবি দোভালের

ফের মুশকিল আসানের নাম অজিত দোভাল। উত্তর পূর্ব দিল্লির অশান্ত এলাকার অলিখিত দায়িত্ব এখন তাঁরই হাতে। সেই তিনিই উপদ্রুত এলাকা পরিদর্শনে গিয়ে বললেন, ‘ইনশাল্লাহ, দিল্লি এখন শান্ত।’

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: তিনি দেশের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা। কাশ্মীর হোক বা কন্যাকুমারীকা, মোদী সরকার কোথাও বিপদে পড়লেই রক্ষাকর্তা হয়ে হাজির তিনি। অজিত দোভাল। অশান্ত উত্তর-পূর্ব দিল্লির বিভিন্ন এলাকা পুনরায় পরিদর্শন করে সেই দোভালই জানিয়ে দিলেন, ‘ইনশাল্লাহ, দিল্লিতে এখন শান্তি বিরাজ করছে।’ উপদ্রুত এলাকার সাধারণ মানুষের সঙ্গেও কথা বলেন তিনি। রিপোর্ট দেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকেও।

সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে অজিত দোভাল

বুধবার সন্ধায় দাবি করেন, ‘পরিস্থিতি সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে। মানুষ সন্তুষ্ট এখন। আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংস্থাগুলির ওপর আমি আস্থা রাখছি। পুলিশ নিজের কাজ করছেন।’

অশান্ত জাফরাবাদে এদিন পুলিশ কনভয় নিয়েও ঘোরেন তিনি। সেখানেই এক ছাত্রীর সঙ্গে কথা হয় তাঁর। ছাত্রীটি তাঁকে বলে, ‘আমরা ভীত। বাড়ি থেকে বেরোতে পারছি না। পড়াশোনা করতেও যেতে পারছি না।’ ছাত্রীর মুখে ওই কথা শুনে দোভাল তাকে আশ্বস্ত করে বলেন, ‘তোমার ভয় পাওয়ার কিচ্ছু নেই। সমস্ত কিছু ঠিক করার দায়িত্ব সরকার ও পুলিশের।’

দিল্লি হিংসায় মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২৪। বুধবার সকালেই ফের চার জনের মৃত্যু হয়েছে। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে ঘটনাস্থলে আগেই গিয়েছিলেন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল। বুধবার সকালে কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার বৈঠকে তাঁর রিপোর্টও পেশ করেন।

মঙ্গলবার রাতেই ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি সরেজমিনে খতিয়ে দেখেছিলেন অজিত ডোভাল। কথা বলেন পুলিশের শীর্ষ কর্তাদের সঙ্গে। সিলামপুর, জাফরাবাদ, মৌজপুর ও গোকুলপুরী ঘুরে দেখেন ডোভাল। ফের বুধবার সন্ধায় গিয়ে সাধারণ মানুষকে আশ্বস্ত করেন তিনি।

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.