ক্রীড়াঙ্গনে ব্রাজিলের সহযোগিতা চায় বাংলাদেশ!

বাংলাদেশের চার কিশোর ফুটবলারকে এক মাসের জন্য নিজেদের দেশে নিয়ে অনুশীলনের সুযোগ করে দিয়েছে বাংলাদেশের ক্রীড়ায় সহযোগিতা শুরু করেছিল ব্রাজিল। পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা মূলত বাংলাদেশের ফুটবল উন্নয়নেই সহযোগিতা বেশি করবে। আগামীতে আরো বেশি ফুটবলার নিয়ে এবং তাদের দেশ থেকে কোচ পাঠিয়ে বাংলাদেশের ফুটবল উন্নয়নে সহযোগিতা করতে প্রতিশ্রুতিও দিয়েছে পেলে-নেইমারদের দেশটি।

বাংলাদেশ কিভাবে ব্রাজিলের সহযোগিতা নিবে এ নিয়ে কাজ করছে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়।  এ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেন, ‘আগামীকাল (বৃহস্পতিবার) এ নিয়ে আমাদের আন্তঃমন্ত্রণালয়ের একটি সভাও আছে। দুপুর আড়াইটায় আমরা মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে বসবো। সেখানে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের এবং সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন সংস্থার উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা থাকবেন। আগামীতে আরো বড় পরিসরে কিভাবে ব্রাজিলের সহযোগিতা নেয়া যায় তা নিয়েই আমরা আলোচনা করবো।’

ব্রাজিল ফুটবল কনফেডারেশন (সিবিএফ) তাদের সামাজিক কার্যক্রমের অংশ হিসেবে বাংলাদেশকে সহযোগিতার উদ্যোগ নিয়েছে বিশ্বেও দ্বিতীয় দেশ হিসেবে। দুই বছর আগেই শুরু এই উদ্যোগ। যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের একটি প্রতিনিধি দল তখন ব্রাজিল সফর করে আলোচনা করে এসেছিলেন দেশটির ফুটবল কর্মকর্তাদের সঙ্গে। যার ফল প্রথম এসেছিল গতবছর চার ফুটবলারকে ব্রাজিল পাঠানোর মধ্যে দিয়ে।

ব্রাজিল থেকে ৩ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দলের ঢাকায় আসার কথা খুব তাড়াতাড়ি। বৃহস্পতিবারের আন্তঃমন্ত্রণালয়ের সভায় ওই তিন সদস্যের ঢাকা সফর নিয়েও আলোচনা হবে। তবে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল ব্যক্তিগতভাবে মনে করছেন এখন বাইরের কোনো অতিথি না আসাই ভালো। ব্রাজিলের প্রতিনিধি দলের ঢাকা সফরের দিনক্ষণ পরিবর্তনের পক্ষে দেশের ক্রীড়ার শীর্ষ ব্যক্তি।

প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, ‘এখনতো পরিস্থিতি স্বাভাবিক নয়। তাই তাদের ঢাকা আসার অনুমতি দেয়া ঠিক হবে না। আমরা বৃহস্পতিবার সভায় বসে সব সিদ্ধান্ত নেবো। সেই সাথে আমরা ব্রাজিলে আরো ফুটবলার পাঠিয়ে এবং তাদের দেশ থেকে কোচ এনে আমাদের কিশোর ফুটবলারদের ট্রেনিং দিয়ে কিভাবে ফুটবলে উন্নয় করা যায় এবং আমরা আর কোন কোন বিষয়ে দেশটির সহযোগিতা পেতে পারি সে বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা করবো। আমরা আশা করছি, ব্রাজিলের সহায়তা বৃদ্ধি পাবে আগের চেয়ে’। 

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.