টিসিবির পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে কারওয়ান বাজারে, আটক ২

রাজধানীর মিরপুরের ডিওএইচএস থেকে এসএসসি পরীক্ষার ভুয়া প্রশ্নফাঁস ও চাকরি দেয়ার নামে ভুয়া নথিপত্রসহ প্রশ্নফাঁস চক্রের আট সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটেলিয়ান (র‍্যাব)। এসময় আরও ১০/১২ জন দৌড়ে পালিয়ে যায়।

বুধবার (১২ ফেব্রুয়ায়রি) রাতে রাজধানীর মিরপুর অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে র‍্যাব-৪। বৃহস্পতিবার (১৩ ফেব্রুয়ায়রি) রাতে র‍্যাব-৪ এর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মোহাম্মদ সাজেদুল ইসলাম সজল (মিডিয়া কো-অর্ডিনেটর) ব্রেকিংনিউজকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

গ্রেফতাকৃতরা হলেন- নাসির বিল্লাহ (২৪), জুবায়ের (২৫), মো. জাহিদ (২৩), মো. সেলিম হোসেন (২৮), মো. সেলিম উদ্দিন (২৫), মো. ফিরোজ (৩৯), মো. শাহজাহান (২৫) ও মো. আসাদ সিকদার (৫৫)। 

এসময় তাদের কাছ থেকে ভুয়া চাকরি প্রদানের নথিপত্র ও ভুয়া প্রশ্নপত্র ফাঁসের একাধিক স্ক্রিনশর্ট জব্দ করা হয়।  

তিনি বলেন, এই চক্রের সদস্যরা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে তদারকি করে ভুয়া প্রশ্ন প্রদানের মাধ্যমে প্রতারণা করে অর্থ আত্মসাৎ করে আসছিলো।

আসামিদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের বরাত দিয়ে সাজেদুল ইসলাম বলেন, গ্রেফতারকৃতরা ভুয়া প্রশ্নফাঁস এবং অর্থ হাতিয়ে নেয়া প্রতারক চক্রের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতার কথা স্বীকার করেছে। এই চক্রটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের অ্যাপস ব্যবহার করে বিভিন্ন পাবলিক পরীক্ষার প্রশ্নফাঁসের সঙ্গে জড়িত ছিলো বলেও জানিয়েছে।

জিজ্ঞাসাবাদে তারা আরও জানায়, চলমান এসএসসি পরীক্ষাকে পুঁজি করে ভুয়া প্রশ্নফাঁস চক্রটি বিভিন্ন ধরনের প্রতারণামূলক কার্যক্রমে লিপ্ত হয়। তারা ফেসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের অ্যাপস ব্যবহার করে এসএসসির পরিক্ষার্থীদের বিভ্রান্ত করে অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরি করছিল। এর বিনিময়ে চক্রটি মোটা অংকের টাকাও হাতিয়ে নেয়।

অভিভাবকদের সচেতনতা প্রসঙ্গ টেনে র‍্যাবের এই কর্মকর্তা বলেন, পরীক্ষার আগের রাতে পরীক্ষার্থীরা প্রশ্নের আশায় থেকে পড়াশোনা না করে প্রশ্ন কিনতে গিয়ে প্রতারিত হচ্ছে। এ বিষয়ে সব অভিভাবকদের সচেতন হতে হবে।

গ্রেফতার আসামি জুবায়েরের বরাত দিয়ে র‍্যাব-৪ এর কর্মকর্তা বলেন, গ্রামের মধ্যশিক্ষিত বেকার ও নিরীহ যুবকদের টার্গেট করে এবং তাদের চাকরি দেয়ার নাম করে প্রায় একশ চাকরি প্রত্যাশিদের সাথে বিভিন্নভাবে প্রতারণা করেছে।

এদিকে প্রশ্নফাঁস চক্রের বাকি সদস্যদের অবিলম্বে গ্রেফতারের জন্য র‌্যাবের আভিযানিক কার্যক্রম অব্যাহত রয়েছে। গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে আইনানুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন সাজেদুল ইসলাম সজল।

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.