মধ্যপ্রাচ্যে নারী শ্রমিকদের নির্যাতন-খুন বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন ও প্রদীপ প্রজ্জ্বলন

সৌদী আরব সহ বিভিন্ন দেশে প্রবাসী নারী শ্রমিকদের নির্যাতন-খুন বন্ধে প্রশিক্ষণ-নিরাপত্তার দাবীতে মানববন্ধন ও প্রদীপ প্রজ্জ্বলন ৪ নভেম্বর সোমবার বিকেল ৪ টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত হয়েছে। মানবাধিকার বাংলাদেশ-এর চেয়ারম্যান শান্তা ফারজানার সভাপতিত্বে এতে আওয়ামী লীগ নেতা লুৎফর রহমান স্বপন ও অনলাইন প্রেস ইউনিটির প্রতিষ্ঠাতা মোমিন মেহেদী প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। মানবাধিকার বাংলাদেশ-এর মহাসচিব সাংবাদিক সোনিয়া দেওয়ান প্রীতির সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত কর্মসূচীতে বক্তারা বলেন, গত ১ বছরে বিভিন্ন দেশ থেকে ৮৮ নারী গৃহকর্মী লাশ ও অগণিত নির্যাতিত হয়ে ফিরলেও সংশ্লিষ্ট মহল কোন আশানুরুপ পদক্ষেপ না নেয়ায় অনতিবিলম্ব পদক্ষেপের দাবী জানান। গণমাধ্যমের তথ্যানুযায়ী- নির্যাতনের অভিযোগে ইন্দোনেশিয়া ও ফিলিপাইনে গৃহকর্মী পাঠানো বন্ধ করে দিলে ২০১৫ সালে বাংলাদেশের সাথে চুক্তি করে সৌদি আরব। এরপর থেকে গত জুলাই মাস পর্যন্ত ৩ লাখ নারী কর্মী গেছেন সৌদি আরবে। দুই বছরের চুক্তিতে যাওয়া নারী গৃহকর্মীরা মাসে বেতন পান বাংলাদেশি টাকায় মাত্র ১৭ হাজার বললেও তা থেকে বঞ্চিত হয়। চুক্তি অনুযায়ী গৃহকর্মীদের বিনা খরচে সৌদি আরব যাওয়ার কথা, কিন্তু দেখা যায় অধিকাংশ ক্ষেত্রেই ১০ হাজার থেকে এক লাখ টাকা লেগে যায় সৌদি আরব যেতে। প্রবাসী শ্রমিকরা নির্যাতনের শিকার হচ্ছেন। তারা বিদেশে কাজে গিয়ে লাশ হয়ে ফিরছেন। নির্যাতন সইতে না পেরে সব খুইয়ে দেশে ফিরে আসছেন। প্রবাসী কল্যাণ সংস্থা ও প্রবাসে দূতাবাসগুলো তাদের দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করছেন না। সংহতি প্রকাশ করেন গাজীপুর অনলাইন-এর সম্পাদক নাসির উদ্দীন বুলবুল, বঙ্গবন্ধু দুঃস্থ্য কল্যাণ সংস্থার সভাপতি মাহবুব হোসেন, মানবাধিকার বাংলাদেশ-এর ভাইস চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর হোসাইন, কায়েস সজীব, জানে আলম প্রমুখ। 
You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.