মসজিদে নারীদের নামাজের ব্যবস্থা চেয়ে রিট

দেশের সকল মসজিদে নারীদের নামাজের ব্যবস্থা চেয়ে হাইকোর্টে রিট দায়ের হয়েছে। রিটে ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সচিব ও ইসলামী ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালককে বিবাদী করা হয়েছে।

সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) বিচারপতি জে. বি. এম. হাসান এবং মো. খায়রুল আলমের হাইকোর্ট বেঞ্চে রিট মামলাটি দায়ের করা হয়েছে।

বিষয়টিব্রেকিংনিউজকে নিশ্চিত করেছেন রিটকারী আইনজীবী মো.মাহমুদুল হাসান মামুন। 

তিনি বলেন, ‘দেশের সকল মসজিদে নারীদের অজু ও টয়লেটের সুবিধাসহ নামাজের ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে জনস্বার্থে রিট মামলাটি দায়ের করেছি। আগামী সপ্তাহের যেকোনো দিন রিট মামলাটির শুনানি হতে পারে।’

রিটে বলা হয়েছে, বাংলাদেশের সংবিধানের ৪১ ধারা অনুযায়ী নারী-পুরুষ সকলের ধর্ম অবলম্বন, পালন ও প্রচারের অধিকার রয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশের নারীরা ধর্ম পালনে বৈষম্যের শিকার হচ্ছে। মুসলমানদের ধর্ম চর্চার কেন্দ্রবিন্দু হলো মসজিদ। পুরুষের পাশাপাশি নারীদেরও মসজিদে নামাজ আদায়ের পূর্ণ অধিকার রয়েছে। 

এ প্রসঙ্গে বিশুদ্ধ হাদিস গ্রন্থ সহীহ মুসলিম শরীফে বর্ণিত আছে- ৮৮৩। সালেম থেকে তার পিতার সূত্রে বর্ণিত। নবী (স.) বলেছেন: তোমাদের কারও স্ত্রী তার স্বামীর কাছে মসজিদে যাওয়ার অনুমতি চাইলে সে যেন নিষেধ না করে।
৮৮৫। ইবনে উমার (রা.) থেকে বর্ণিত। রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন: আল্লাহর বান্দীদের আল্লাহর মসজিদে যেতে বাধা দিও না।

সুতরাং দেখা যচ্ছে, সাংবিধানিক ও ধর্মীয়ভাবে নারীদের মসজিদে নামাজ আদায়ের পূর্ণ অধিকার থাকা সত্ত্বেও বাংলাদেশের নারীরা এ অধিকার থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। মুসলিম নারীরা যাতে যথাযথভাবে নামাজ আদায় করতে পারে, সেজন্য বাংলাদেশের সকল মসজিদে নারীদের জন্য আলাদা নামাজের জায়গা, আলাদা অজু করার জায়গা ও টয়লেটের ব্যবস্থা করতে হবে।

You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.