যশোরে ভৈরব নদ খননের সময় সাড়ে তিনশ’বছর আগের বোতল উদ্ধার

ইয়ানূর রহমান : যশোর শহরে ভৈরব নদ খননের সময় চিনামাটির তৈরি সাড়ে তিনশ’ বছর আগের একটি বোতল উদ্ধার হয়েছে। 
১৬৬২ সালে বোতলটি তৈরি। বোতলের গায়ে ইস্ট ইণ্ডিয়া কোম্পানি ১৬৬২ লেখা ছিল। 
:ভৈরব নদ খননের সময় গত ২৭ নভেম্বর বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে শহরের দড়াটানা মোড়ের পশ্চিম পাশে কাদামাটির ভেতর থেকে দলিল উদ্দিন দুলু নামে এক ব্যক্তি বোতলটি উদ্ধার করেন। দুলুর বাড়ি যশোর উপশহর ডি-ব্লকে। শহরের মাইকপট্টিতে তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রয়েছে। দলিল উদ্দিন দুলু কুড়িয়ে পাওয়া বোতলটি নিয়ে গতকাল রাতে সাংবাদিকদের কাছে আসেন। 
তিনি বলেন, ২৭ নভেম্বর বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে দড়টানা ভৈরব চত্বরের পশ্চিমপাশে এস্কেভেটর দিয়ে নদ খননের কাজ চলছিল। এ সময় কাদামাটির সাথে বোতলটি উঠে আসলে তিনি তা তুলে নেন এবং বাড়িতে নিয়ে পরিস্কার করেন। বোতলের গায়ে ১৬৬২ সাল ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি লেখা ছিল। কালের সাক্ষী বোতলটি চীনা মাটির তৈরি। ধূসর বর্ণের কাদা মাটির ভেতর সাড়ে ৩শ’ বছর পড়ে থাকায় রং বিকৃত হয়ে গেছে। সিরিশ কাগজ দিয়ে ঘসে মেজে পরিস্কার করার সময় সালটি মুছে গেছে। বোতলটি তার হেফাজতে রয়েছে।
এ থেকে বোঝা যায়, সে সময় ভৈরব নদ ছিল খরস্রোতা। দড়াটানা ছিল বাণিজ্যের স্থান। তখন ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির ব্যবসায়ীরা জাহাজে কিংবা নৌকাযোগে যশোরে এসে ব্যবসা করতেন। তাদের ফেলে যাওয়া বোলটি ঐতিহাসিক গুরুত্ব বহন করে।
You might also like

Leave A Reply

Your email address will not be published.