দেশীয় অস্ত্রবোঝাই পিকআপ আটক করেছে পুলিশ

গোপালগঞ্জের মুকসুদপুরে বিপুল পরিমাণ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রবোঝাই বালুবাহী একটি পিকআপ আটক করেছে সিন্দিয়াঘাট ফাঁড়ি পুলিশ।

বৃহস্পতিবার টেকেরহাট-গোহালা সড়কের উপজেলার রাঘদী ইউনিয়নের চরপ্রসন্নদী খাদ্যগুদামের কাছ থেকে চালক ও বালুর মালিকসহ পিকআপটি আটক করা হয়।

পিকআপটি মুকসুদপুর উপজেলার শান্তিপুর থেকে চরপ্রসন্নদী খাদ্যগুদাম হয়ে পার্শ্ববর্তী গ্রামের দিকে যাচ্ছিল।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানান, গোপন সংবাদের ভিক্তিতে বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে অভিযান চালিয়ে মুকসুদপুর উপজেলার রাঘদী ইউনিয়নের চরপ্রসন্নদী খাদ্যগুদামের কাছ থেকে দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রবোঝাই বালুবাহী পিকআপটি চালক ও বালু বিক্রেতাসহ আটক করে ফাঁড়িতে নিয়ে আসা হয়। পরে পিকআপ থেকে বালু আনলোড করা হয়।

এ সময় বালু দিয়ে ঢেকে রাখা ৮টি ঢাল, ১৩০টি লোহার কালি, ১০০টি বল্লম, ১৮০টি বাঁশের কুড়া, ৩৭টি বাঁশের লাঠি উদ্ধার এবং কাবুল শেখের পুত্র পিকআপের চালক কামরুল শেখ ও ওহাব শেখের পুত্র বালু বিক্রেতা সাইদুর শেখকে আটক করা হয়।

আটককৃতদের বাড়ি একই উপজেলার পার্শ্ববর্তী গঙ্গারামপুর গ্রামে। এসব দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র এলাকার আধিপত্য বিস্তার ও আগামী ইউপি নির্বাচনে প্রভাব বিস্তারের জন্য বিবদমান কোনো একটি পক্ষ জমায়েত করার জন্য এনেছিল।

এ ঘটনায় এলাকায় আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে। ইতোপূর্বে উপজেলার রাঘদী ইউনিয়নে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে ৪ জন নিহত হন।

মুকসুদপুর থানার ওসি আবু বকর মিয়া জানান, এলাকায় সামনে ইউপি নির্বাচন ও দীর্ঘদিন আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে পূর্ব থেকেই সংঘর্ষ চলে আসছিল।

সামনেও ইউপি নির্বাচন। এ নির্বাচন ও আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে এলাকায় ফের বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির জন্য এসব দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র সরবরাহ করা হচ্ছিল বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ ব্যাপারে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.