মাদ্রাসাছাত্রীর আঙুল কেটে দিল বখাটে

পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া উপজেলার রাজপাশা গ্রামে প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় এক মাদ্রাসাছাত্রীর আঙুল কেটে দিয়েছে বখাটে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ছাত্রীর বোন মঙ্গলবার ভাণ্ডারিয়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, রোববার মাদ্রাসা ছুটির পর বাড়ি ফেরার পথে রাজপাশা গ্রামের বারেক মৃধার ছেলে শামীম মৃধা মাদ্রাসাছাত্রীকে কুপ্রস্তাব দেয়।

কিন্তু মেয়েটি প্রস্তাবে রাজি না হলে বখাটে শামীম তাকে যৌন হয়রানি শুরু করে। একপর্যায়ে শামীম তাকে ছুরিকাঘাত করে। এতে মাদ্রাসাছাত্রীর বাম হাতের তিনটি আঙুল মারাত্মকভাবে জখম হয়।

বখাটে শামীমের বিরুদ্ধে একাধিক স্কুল-কলেজছাত্রীকে উত্ত্যক্ত, শ্লীলতাহানিসহ যৌন হয়রানির অভিযোগ রয়েছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও ভাণ্ডারিয়া থানার উপ-পরিদর্শক মো. ফারুক আলম বলেন, মাদ্রাসাছাত্রীকে শ্লীলতাহানির ঘটনায় ভাণ্ডারিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

আসামি গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। শামীমের রিরুদ্ধে ভাণ্ডারিয়া থানায় আরও ৫টি মামলার গ্রেফতারি পরোয়ানা আছে বলেও জানান তিনি।

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.