২০ হাজার শয্যা প্রস্তুত রাখা হয়েছে, স্বাস্থ্যমন্ত্রী

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, দেশে করোনাভাইরাস আক্রান্তের সংখ্যা তীব্র গতিতে বাড়ছে। এ অবস্থায় দেশের হাসপাতালগুলোতে রোগীর চাপও বাড়বে।

 

আক্রান্তদের চিকিৎসায় আগাম প্রস্তুতি হিসেবে আরও ২০ হাজার শয্যা প্রস্তুত রাখতে বলা হয়েছে।

 

বুধবার ১২ জানুয়ারি মহাখালীর বাংলাদেশ কলেজ অব ফিজিশিয়ানস অ্যান্ড সার্জন ভবনে অ্যাম্বুলেন্স ও ল্যাপটপ বিতরণ অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এ কথা বলেন।

 

মন্ত্রী বলেন, হাসপাতালগুলো এখন শয্যা খালি থাকলেও আগামী চার/পাঁচ দিনের মধ্যেই পরিস্থিতি পাল্টে যাবে। হাসপাতালগুলো রোগীতে পূর্ণ হতে শুরু করবে।

 

এক সপ্তাহ আগেও হাসপাতালগুলোতে গড়ে রোগী আড়াইশর মতো রোগী ছিল, যা এখন হাজার হয়েছে। যা আরও বাড়বে। এতে করে মৃত্যুও বাড়বে। আবারও চিকিৎসকদের সেবা দিতে হিমশিম খেতে হবে। এটা বাড়লে বেকায়দায় পড়তে হবে।

 

জাহিদ মালেক বলেন, আমাদের পরিস্থিতি যেন আমেরিকা ও ইউরোপের মত না হয়, সেজন্য ১১ দফা সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। যা আগামীকাল থেকে কার্যকর হবে।

সংক্রমণের ঊর্ধ্বগামীতার মধ্যেই আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা ও সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন প্রশ্নে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, আমরা সরকারকে সব ধরনের জনসমাগম ও সভাসমাবেশ নিয়ন্ত্রণ করতে বলেছি।

 

কিন্তু স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় তো শুধু পরামর্শ আর নির্দেশনাই দিতে পারে, এর বেশি কিছু করার সুযোগ নেই।

 

 

আরও পড়ুন

শিক্ষা  অপরাধ  স্বাস্থ্য  অর্থনীতি  রাজনীতি  আন্তর্জাতিক  খেলাধুলা  লাইফস্টাইল  সারাদেশ

২০ হাজার ২০ হাজার ২০ হাজার

You might also like
Leave A Reply

Your email address will not be published.