Tue. Feb 18th, 2020

বিমানবন্দরের অতিরিক্ত ফি এড়াতে লাগেজের কাপড় চাপালেন গায়ে!

পুরো ঘটনা মুঠোফোনের ক্যামেরায় ধারণ করে ওই ব্যক্তির ১৭ বছর বয়সী ছেলে

ফ্রান্সের নিশ শহর থেকে এডিনবরাহ বিমানবন্দরে ফিরছিলেন স্কটিশ নাগরিক জন আরভিন। কিন্তু সেখানে ঘটে যায় বিপত্তি, নির্ধারিত ওজনের অতিরিক্ত ৮ কিলোগ্রাম ব্যাগেজ থাকায় তাকে আটকায় কর্তৃপক্ষ। নিয়মানুযায়ী অতিরিক্ত মালামালের জন্য এয়ারলাইন্সকে দিতে হয় অতিরিক্ত ফি।

কিন্তু আরভিন অতিরিক্ত অর্থ গুণতে নারাজ। ৩০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা সত্তেও লাগেজের ওজন কমানোর জন্য তিনি একে একে গায়ে চাপান ১৫ টি শার্ট ও গরম পোশাক।

পুরো ঘটনা মুঠোফোনের ক্যামেরায় ধারণ করে আরভিনের ১৭ বছর বয়সী ছেলে। আর বাবার এমন কাণ্ড সোশ্যাল মিডিয়ায় দিতেও ভোলেনি সে। ছড়িয়ে পড়া মাত্রই এই কাণ্ড ভাইরাল হতেও খুব বেশি দেরি হয়নি।

ছেলেটি জানায়, “কাউন্টার থেকে অতিরিক্ত মালামালের জন্য বাড়তি অর্থ চাওয়া হলে বাবা স্যুটকেস থেকে পোশাকগুলো বের করে একের পর এক গায়ে চাপাতে শুরু করেন।”

টুইটারের ভিডিওতে দেখা যায়, এতগুলো কাপড় পরে রীতিমতো ঘামছিলেন আরভিন।

ছেলেটি আরও জানায়, “হাসতে হাসতে পেটে খিল ধরে যাচ্ছিল। নিরাপত্তাকর্মীরা সন্দেহ করছিলেন আমরা বুঝি কিছু পাচারের চেষ্টা করছি। তবে শেষ পর্যন্ত ভালোয় ভালোয় গন্তব্যে পৌঁছতে পেরেছি।”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *